Home বাংলাদেশ প্রশ্ন করলে উত্তর দিচ্ছে গাছ,কান পেতে শুনছে মানুষ!

প্রশ্ন করলে উত্তর দিচ্ছে গাছ,কান পেতে শুনছে মানুষ!

27

প্রশ্ন করলে উত্তর দিচ্ছে গাছ,কান পেতে শুনছে মানুষ!

গোপালগঞ্জের মুকসুদপুর উপজেলার গর্জিনা গ্রামের সৌদি প্রবাসী সবুর মিয়া বাগানের একটি গাছকে প্রশ্ন করলে উত্তর পাওয়ার গুজব ছড়িয়ে পড়েছে। গাছটি দেখতে ভিড় করছেন অসংখ্য মানুষ, সেই সঙ্গে কান পেতে গাছের কথা শোনার চেষ্টাও করছেন অনেকে।

জানা গেছে, গত ১৪ জুন সবুর মিয়ার ওই বাগানে স্থানীয় জুয়েল মোল্লার ছেলে নীরবসহ কয়েকজন শিশু গাছ কাটতে যায়। বাগানে গিয়ে তারা গাছে আঘাত করলেই সেটি কথা বলে ওঠে। পরে ঘটনাটি এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়।

অনেকে বলছেন, গাছটিকে বিভিন্ন প্রশ্ন করলেও সেটি তার উত্তর দিচ্ছে। অনেক দর্শনার্থী গাছের কথা শুনতে পান দাবি করে এটি ‘অলৌকিক’ বলে আখ্যা দিয়েছেন।

মুকসুদপুর উপজেলার রাঘদি ইউনিয়নের মেম্বার সাদ্দাম হোসেনসহ স্থানীয় লিয়াকত হোসেন, টেকেরহাট গ্রামের রাসেল, গর্জিনা গ্রামের গণি মিয়াসহ আগন্তুকরা গাছের গায়ে কান পেতে কথা শোনার চেষ্টা করেন। অনেকে দাবি করেছেন তারা কথা শুনতে পেয়েছেন। তবে প্রতিবেদক গাছে কান পেতে কিছু শুনতে পাননি বলে জানিয়েছেন।

স্থানীয় মসজিদের ইমাম মাওলানা মোহাম্মদ বাদশা এ বিষয়ে বলেন, ‘এ ধরনের ঘটনাকে ইসলাম সমর্থন করে না। তবে জিন গাছের মধ্যে আটকে রাখার কারণে এমনটি হতে পারে।’

তবে এ ঘটনায় বিজ্ঞান বলছে ভিন্ন কথা। গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উদ্ভিদ বিজ্ঞানের সহকারী অধ্যাপক নাহমিনা বেগম নতুন টাইমসকে বলেন, গাছে কান পাতলে কথা শোনা যায় এটার বৈজ্ঞানিক কোনো ভিত্তি নেই। তবে গাছের একটি শক্ত নেটওয়ার্ক রুট রয়েছে। যা অনেক দূর পর্যন্ত বিস্তৃত। এর মাধ্যমে এক গাছ আরেক গাছ কে উপকার করে থাকে। তবে গাছে কান পাতলে কথা শোনার বিষয়টি গুজব বলে দাবি তার।

একই বিশ্ববিদ্যালয়ের মনোবিজ্ঞানের সহকারী অধ্যাপক নুসরাত শারমিন নতুন টাইমসকে বলেন, শুনে মনে হচ্ছে বিষয়টি প্যারিডোলিয়া হতে পারে। প্যারাডোলিয়া এক ধরনের মনস্তাত্ত্বিক রোগ, এতে কোনো বস্তুগত বিষয়কে ব্যক্তি অর্থবহ করে তুলতে পছন্দ করে। এছাড়া মানুষের মাস হিস্ট্রেরিয়া থেকেও মানুষের মাঝে এমন ভ্রান্ত ধারণা ছড়িয়ে পড়তে পারে।