Home বাংলাদেশ যুগলকে গাছে বেঁধে লালমনিরহাটে নির্যাতন,উদ্ধারের পর ধর্ষণ মামলায় প্রেমিক আটক 

যুগলকে গাছে বেঁধে লালমনিরহাটে নির্যাতন,উদ্ধারের পর ধর্ষণ মামলায় প্রেমিক আটক 

6

লালমনিরহাটে যুগলকে গাছে বেঁধে নির্যাতন,উদ্ধারের পর ধর্ষণ মামলায় প্রেমিক আটক

এক তরুণ-তরুণীকে লালমনিরহাটে গাছে বেঁধে নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। পরে ওই তরুণীর বাবা বাদী হয়ে থানায় ধর্ষণ মামলা দায়ের করলে গ্রেফতার করা তপন চন্দ্র নামে ওই তরুণকে।

এরই মধ্যে ওই যুগলকে গাছে বেঁধে রাখার ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে।বৃহস্পতিবার (৩১ আগস্ট) হাতীবান্ধা উপজেলার সিংগীমারী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়,হাতীবান্ধা উপজেলার সিংগীমারী গ্রামের সুভাষ চন্দ্রের ছেলে তপন চন্দ্রের সাথে প্রতিবেশী এক তরুণীর প্রেমের সম্পর্ক ছিল। সেই সূত্রে বৃহস্পতিবার সকালে তরুণী ওই যুবকের বাড়িতে যায়। তবে এসময় স্থানীয় কয়েকজন তাদের বাড়ি থেকে বের করে এনে সিংগীমারী ইউপির সাবেক মহিলা সদস্য রাহেলা বেগমের বাড়ির সামনের সুপারি গাছে একসাথে বেঁধে নির্যাতন করে।

এদিন দুপুরে খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে তাদের উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। পরে তরুণীর বাবার দায়ের করা ধর্ষণ মামলায় গ্রেফতার করা হয় তপনকে। তবে ধর্ষণের অভিযোগ অস্বীকার করে ওই তরুণ জানায়, ফাঁসানো হয়েছে তাকে।

এঘটনায় মেয়ের বাবা বাদী হয়ে থানায় মামলা করেছেন। সেই মামলায় তাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। ওই তরুণীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানান হাতীবান্ধা থানার ওসি শাহাআলম।